কোর্ট সীমিত পরিসরেও চালু রাখা আত্মঘাতী সিদ্ধান্ত

Pub: Friday, April 24, 2020 2:13 PM
 
 
 

শীর্ষ খবর ডটকম

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

করনা ভাইরাসের এই মহামারী সময়ে কোর্ট সীমিত পরিসরে ও চালু রাখা আত্মঘাতী সিদ্ধান্ত বলে মন্তব্য করেছেন বাংলাদেশ সুপ্রিম কোর্টের এডভোকেট মোঃ আব্দুর রহিম।

শুক্রবার ২৪ এপ্রিল গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে তিনি এ মন্তব্য করেন।

বিবৃতিতে তিনি বলেন ২৩ এপ্রিল সুপ্রিম কোর্টের পৃথক পৃথক প্রজ্ঞাপন জারি হয়েছে সারা দেশের জেলা ও দায়রা জজ, চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট, ক্ষেত্রভেদে চীফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে সপ্তাহে দুদিন এবং সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগের চেম্বার জজ ও হাইকোর্ট বিভাগের একটি একক বেঞ্চ জরুরি মামলা শুনানির জন্য নির্ধারণ করা হয়েছে। সরকারের এই সিদ্ধান্ত দেশে করোনাভাইরাস আরো বিস্তার ঘটাবে কারণ অল্প পরিসরে চালু করলে মানুষ আসবেই।যেখানে মানুষকে ঘরে রাখার জন্য জীবনের ঝুঁকি নিয়ে কাজ করছে সেনাবাহিনী, পুলিশ, রাপ ।অপরদিকে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে চিকিৎসা সেবা দিয়ে যাচ্ছে চিকিৎসক, নার্স ও স্বাস্থ্যকর্মীরা ঠিক সেই মুহুর্তে সীমিত পরিসরে কোর্ট চালুর সিদ্ধান্ত আত্মঘাতী।

তিনি আরো বলেন,সরকার পঞ্চম ধাপে ৫ মে পর্যন্ত সরকারি ছুটি ঘোষণা করেছে। কিছু জরুরী পরিষেবা আওতাবহির্ভূত রাখা হয়েছে যার মধ্যে কোট এর নাম নেই। অপরদিকে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা সরকার প্রতিনিয়ত গণমাধ্যমে সতর্ক করছে ঘরে থাকার জন্য সেই মুহূর্তে কোড সীমিত পরিসরে চালু রাখা ঠিক হবে কিনা সরকারকে আবার চিন্তা করা উচিত।

তি‌নিব‌লেন,কোর্ট চলবে বেলাে১১ হতে ২টা পর্যন্ত(সম্ভাবত) । কোর্টের ভিতরে ডুকতে পরবে ১০ জন আইনজীবী।ভাগ্যবান সেই ১০ জন আইনজীবী কারা? ঢাকার বেশিরভাগ আইনজীবী এখন ঢাকার বাহিরে অর্থাৎ গ্রামের বাড়ি, কোর্ট খোললে তাঁরা চলে আসবে ঢাকায়।বন্ধ হলেই চলে যাবে গ্রামে। গ্রামে যাওয়ার সময় সঙ্গে নিবে যাবে করোনাকেও”।
তি‌নি ব‌লেন,আইনজীবীদের প্রথম শ্রেনীর নাগরিক মনে করা হয়, তাহলে কেন তাঁদের ইচ্ছার বিরুদ্ধে কোর্টে আসতে বাধ্য করা হচ্ছে। তাঁদের মতামতের কি কোনই মুল্য নাই।
৯৫% আইনজীবী চাচ্ছেন মহামারি চলাকালিন সময় কোর্ট বন্ধ থাকুক।তাঁরা প্রথম শ্রেনীর নাগরিক তাঁদের মতামতের প্রাধান্য দিন।
মাত্র ১৩/১৪ জন আইনজীবীর মতামতের উপর কোর্ট খোলা কি ঠিক হবে?

প্রধান বিচারপতির প্রতি অনু‌রোধ জা‌নি‌য়ে তি‌নি ব‌লেন, কোর্ট বন্ধ রাখার বিষয়টি একটু ভেবে দেখবেন।যেখানে সাধারণ ছুটি ঘোষণ ।
মহামারিতে কোর্ট খোলা থাকলে, এটা আরও মহা-মহামারিতে পরিনত হবে।লাশের মিছিলে যোগ হবে একের পরে এক আইনজীবীদের লাশ।

Hits: 1


  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Print

শীর্ষ খবর/আ আ