চট্টগ্রাম-৫ : জোট-মহাজোট প্রার্থীরা মাঠে তৎপর

Pub: বৃহস্পতিবার, সেপ্টেম্বর ১৩, ২০১৮ ৩:২৮ পূর্বাহ্ণ   |   Upd: বৃহস্পতিবার, সেপ্টেম্বর ১৩, ২০১৮ ৩:২৮ পূর্বাহ্ণ
 
 
 

শীর্ষ খবর ডটকম

মোহাম্মদ হোসেন,হাটহাজারী:
আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে(চট্টগ্রাম-৫)হাটহাজারীতে আওয়ামীলীগ ও বিএনপি মধ্যে নির্বাচনে শক্তিশালী লড়াই হওয়ার সম্ভানা রয়েছে। উপজেলার ১৪টি ইউনিয়ন,১টি পৌরসভা ও সিটিকর্পোরেশেনের ২টি ওয়ার্ড এলাকা নিয়ে এবারও জাতীয় সংসদ নির্বাচন অনুষ্টিত হবে। ১ নং দক্ষিণ পাহাড়তলী ও ২ নং জালালাবাদ ওয়ার্ড নিয়ে গঠিত চট্টগ্রাম-৫ নির্বাচনী আসনে আওয়ামী লীগ ও বিএনপির মনোনয়ন প্রত্যাশীরা মাঠে নেমেছেন। জোট-মহাজোট থেকে হেভিওয়েট প্রার্থীরা এ আসন থেকে মনোনয়ন চাইতে পারে। বর্তমান এ আসন থেকে নির্বাচিত এমপি,পরিবেশ, বন ও জলবাযু পরিবর্তন বিষয়ক মন্ত্রনালনের দায়িত্বপ্রাপ্ত মন্ত্রী ব্যারিস্টার আনিসুল ইসলাম মাহমুদ এমপি মহাজোট থেকে আবার মনোনয়ন চাইবেন। অন্যাদিকে জোট থেকে কল্যাণ পাটির চেয়ারম্যান মেজর জেনারেল (অব.) সৈয়দ মো. ইব্রাহিম।

হাটহাজারী আওয়ামী লীগের রাজনীতিতে বিভক্তি রেখা ক্রমেই গভীর হচ্ছে। এর প্রভাব প্রকটভাবে পড়েছে সকল অঙ্গ সংগঠনে। বিএনপির নিশকৃয়তায় মাঠে এখন আওয়ামী লীগের বিরুদ্ধে আওয়ামী লীগ। নিজেদের মধ্যে মারামারি, সংঘাত। আওয়ামী লীগ যেন একের ভেতরে অনেক। এতে খুবই বিরক্ত দলটির তৃণমূলের সাধারণ কর্মী সমর্থকরা।

তবে ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ ও সংসদের বাইরে থাকা বিএনপিতে রয়েছে কোন্দল। পছন্দের লোকজন নিয়ে কমিটি করা নিয়েই এই কোন্দল। আগামী সংসদ নির্বাচনে আওয়ামীলীগের এ কোন্দলকে কাজে লাগাতে চেষ্টা চালিয়ে যাবে বিএনপি। বর্তমান মহাজোটের এমপি, পরিবেশ, বন ও জলবাযু পরিবর্তন বিষয়ক মন্ত্রনালনের দায়িত্বপ্রাপ্ত মন্ত্রী ব্যারিস্টার আনিসুল ইসলাম মাহমুদ এমপি ব্যারিস্টার আনিসুল ইসলাম মাহমুদের বিরুদ্ধে অবস্থান নিয়েছে সরকারদলীয় একটি পক্ষ। শুরু থেকেই বর্তমান এমপির বিরোধীতা করে আসছে ওই পক্ষের নেতাকর্মীরা। এবারও তারা ব্যারিস্টার আনিসুল ইসলাম মাহমুদের মনোনয়ন ঠেকাতে জোরালো ভাবে মাঠে নামার সম্ভাবনা রয়েছে। তবে যারা বিগত সময়ে নেতাকর্মীদের পাশে না থেকেও এখন এমপি প্রার্থী হওয়ার জন্য তদবির করছেন, তারা যেন কোনভাবেই মনোনয়ন না পায় সেই জন্য দলীয় প্রধান ও বর্তমান প্রধান মন্ত্রী শেখ হাসিনার সুদৃষ্টি কামনা করেছেন তৃণমুল নেতার্কর্মীরা।

বর্তমান সংসদ সদস্য জাতীয় পাটির প্রেসিডিয়াম সদস্য ব্যারিস্টার আনিসুল ইসলাম মাহমুদ এমপি আওয়ামী লীগের সভানেত্রী ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার মন্ত্রি পরিষদের মন্ত্রণালয়ের দায়িত্বে আছেন।

আঃমীলীগের দলীয় নেতারা বলেন, দলে অভ্যন্তরীণ কোনো কোন্দল নেই। মাঝে মধ্যে যেসব হামলা-সংঘর্ষে ঘটনা ঘটে তা রাজনৈতিক কারণে হচ্ছে না। সামাজিক কারণেই এসব হামলা-সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে থাকে। হয়তো সামাজিক নানা বিষয়ে নেতাকর্মীরা সম্পৃক্ত থাকতে পারে।

এ আসনে জাতীয় পাটি আনিসুল ইসলাম মাহমুদ মহাজোটের প্রার্থী হিসেবে মনোনয়ন পাওয়ায় সম্ভাবনা থাকা সত্ত্বেও বিগত দু’টি জাতীয় সংসদ নির্বাচনে অংশ নিতে পারেননি উত্তর জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও চট্টগ্রাম জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান এম এ সালাম। দলের বৃহত্তর স্বার্থে সরে দাঁড়ালেও এবার মহাজোটের প্রার্থী না থাকলে মনোনয়ন চাইবেন তিনি। এক্ষেত্রে তাকে জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান পদ ত্যাগ করতে হবে। জোটের প্রার্থী থাকলে অবশ্য দলের সিদ্ধান্তই মেনে নেবেন। ২০০৮ সালের নির্বাচনে মাননীয় প্রধান মন্ত্রী শেখ হাসিনার সিদ্ধান্তে চট্টগ্রাম-৫ আসনের মনোনয়ন প্রত্যাহার করেছিলেন। সেই স্থানে জোটের পক্ষে জাতীয় পাটির প্রেসিডিয়াম সদস্য ব্যারিস্টার আনিসুর ইসলাম মাহমুদ নির্বাচনে দাঁড়িয়ে ছিলেন। গতবার নেত্রীর কথায় মনোনয়ন প্রত্যাহার করায় এবার মনোনয়ন পাওয়ার বিষয়ে শতভাগ আত্মবিশ্বাসী এম এ সালাম।

জানতে চাইলে আওয়ামী লীগ এর সিনিয়র নেতারা বলেন,হাটহাজারী থেকে এবারও এম এ সালাম মনোয়ন চাইবে। জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান হয়েও হাটহাজারীতে উন্নয়নমুলক কাজ করে যাচ্ছেন বলে তারা জানান।

বিএনপি : দলীয় সূত্রে জানা যায়, উপজেলা কমিটি নিয়ে দীর্ঘদিন ধরে দলে বিভক্তি রয়েছে। আলাদা ভাবেই আন্দোলন সংগ্রাম ও কেন্দ্রীয় কর্মসূচি পালন করে যাচ্ছে দলটির নেতাকর্মীরা। একটি পক্ষের নেতৃত্বে রয়েছেন উপজেলা বিএনপির সভাপতি এস এম ফজলুল হক । অন্যপক্ষের নেতৃত্ব দিচ্ছেন বিএনপির কেন্দ্রীয় ভাইস চেয়ারম্যান মীর মোহাম্মদ নাছির উদ্দিন।

এই আসনে ১৯৯১, ১৯৯৬ ও ২০০১ সালের নির্বাচনে বিএনপি’র মনোনীত প্রার্থী হিসেবে নির্বাচন করে বিএনপি’র সাবেক এমপি ছৈয়দ ওয়াহিদুল আলম। তার মৃত্যুর পর এবার এ আসন থেকে জাতীয় সংসদ নির্বাচনে তার মেয়ে এডভোকেট শাকিলা ফারজানা মনোনয়ন চাইবেন বলে একাধিক সুত্রে জানা গেছে।

২০০৮,২০১৪ সালে নির্বাচিত হন মহাজোট প্রার্থী ব্যারিস্টার আনিসুল ইসলাম মাহমুদ এমপি। ২০০৮ সালের মহাজোট হয়ে নির্বাচনে করায় বিএনপির প্রার্থী ছৈয়দ ওয়াহিদুল আলমকে হারিয়ে নির্বাচিত হয়েছেন। এর আগের জাতীয় সংসদ নির্বাচন গুলোতে জাতীয় পাটি হতে একক প্রার্থী হিসেবে নির্বাচন করায় তিনি ওই বিএনপি’র প্রার্থী হতে হেরে যান।

এবার বিএনপি জোটগত নির্বাচন করলে ২০ দলীয় জোটের প্রার্থী হিসেবে মনোনয়ন পেতে পারেন কল্যাণ পাটির চেয়ারম্যান মেজর জেনারেল (অব.) সৈয়দ মো. ইব্রাহিম। দলীয় নেত্রীর নির্দেশে তিনি এখন হাটহাজারীর আনাছে কানাছে চুষে বেড়াচ্ছেন।

জানতে চাইলে জেনারেল (অব.) সৈয়দ মো. ইব্রাহিম বীর প্রতিক বলেন,জোটের শরিক দল হিসেবে আমার নির্বাচনী এলাকা হাটহাজারী থেকে মনোনয় পাওয়া নিশ্চিত বলে আমি মনে করি। দলীয় নেত্রীও আমাকে এলাকায় থাকার নির্দেশ দিয়েছেন।

হাটহাজারী উপজেলা পরিষদ এর চেয়ারম্যান ও উপজেলা বিএনপি’র সাধারণ সম্পাদক মাহাবুবুল আলম চৌধুরীর কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন,আমরা এস এম ফজলুল হক এর পক্ষে মনোয়ন চাইব এর আগেও ৪বার জাতীয় সংসদ নির্বাচনে মনোয়ন চেয়ে ছিলাম কিন্ত দলীয় নেত্রীর সিদ্ধান্ত বাইরে আমরা যায়নি। তবে এবার এ আসন থেকে এস এম ফজলুল হককে মনোনয়ন দেবে এটা শতভাগ আশাবাদী।

এ আসনে বিএনপির নেতৃত্বাধীন ২০ দলীয় জোটের শরিক বাংলাদেশ কল্যাণ পার্টির চেয়ারম্যান মেজর জেনারেল (অব.) সৈয়দ মোহাম্মদ ইব্রাহিম মনোনয়ন পেতে পারেন। এ আসন থেকে আরো সম্ভাবনা রয়েছে সাবেক মন্ত্রী ও দলের কেন্দ্রীয় ভাইস চেয়ারম্যান মীর মোহাম্মদ নাছির উদ্দিন অথবা দলের চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা এস এম ফজলুল হকের।

১৪ দলীয় মহাজোটের মধ্যে আওয়ামী লীগ ও জাতীয় পার্টি ছাড়া অন্যান্য ১২টি দলের কোনো কার্যক্রম এখানে নেই। এভাবে ২০ দলীয় জোটের মধ্যে বিএনপি, জামায়তে ইসলাম, কল্যাণ পাটি,ইসলামী ঐক্যজোট ছাড়া এখানে ১৬টি দলের অস্তিত্ব নেই।

আওয়ামীলীগ,বিএনপি ও জাতীয় পাটিসহ বিভিন্ন রাজনৈতিকদল এ আসনকে বিশেষ গুরুত্ব দিয়ে থাকে। চট্টগ্রাম জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান এম এ সালাম, উত্তর জেলা আওয়ামীলীগ নেতা ইউনুচ গণি চৌধুরী, জোটের বর্তমান এমপি ব্যারিষ্টার আনিসুল ইসলাম মাহমুদ। বিশিষ্টি আইনজীবী ইব্রাহমি হোসনে বাবুল, বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ কেন্দ্রীয় উপ-কমিটির সাবেক সহ-সম্পাদক মোঃ সালাউদ্দিন চৌধুরী শেলু ও আওয়ামীলীগের মনজুরুল আলম মনজু, জসিম উদ্দিন শাহ্।

Print

শীর্ষ খবর/আ আ

সংবাদটি পড়া হয়েছে 1176 বার

আজকে

  • ১০ই আশ্বিন, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
  • ২৫শে সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ইং
  • ১৫ই মুহাররম, ১৪৪০ হিজরী
 

সোশ্যাল নেটওয়ার্ক

 
 
 
 
 
সেপ্টেম্বর ২০১৮
রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি
« আগষ্ট    
 
১০১১১২১৩১৪১৫
১৬১৭১৮১৯২০২১২২
২৩২৪২৫২৬২৭২৮২৯
৩০  
 
 
 
 
WP Facebook Auto Publish Powered By : XYZScripts.com