শেখ হাসিনা আমার প্রেরণা’

Pub: মঙ্গলবার, ফেব্রুয়ারি ১২, ২০১৯ ৭:১০ অপরাহ্ণ   |   Upd: মঙ্গলবার, ফেব্রুয়ারি ১২, ২০১৯ ৭:১০ অপরাহ্ণ
 
 
 

শীর্ষ খবর ডটকম

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

নরসিংদী প্রতিনিধি:
নরসিংদী শহর আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক ও প্রয়াত পৌর মেয়র লোকমান হোসেনের স্ত্রী তামান্না নুসরাত বুবলীকে একাদশ জাতীয় সংসদের সংরক্ষিত মহিলা আসনে নরসিংদী ও গাজীপুর একাংশের এমপি হিসেবে মনোনীত করেছেন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ। নরসিংদী জেলা আওয়ামী লীগের এই মহিলা বিষয়ক সম্পাদককে এমপি মনোনীত করায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার প্রতি কৃতজ্ঞতা জানিয়েছেন তামান্না নুসরাত বুবলী।

বাংলাদেশ জার্নালকে দেয়া একান্ত সাক্ষাৎকারে বুবলী বলেন, ‘আমি স্বামী হারানোর শোককে শক্তিকে রূপান্তর করতে চাই। আওয়ামী লীগের একজন তৃণমূল কর্মী হিসেবে নরসিংদীবাসীর কল্যাণে আজীবন কাজ করে যেতে চাই। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী আমাকে এলাকাবাসীর উন্নয়নে সংসদে গিয়ে কথা বলার সুযোগ করে দেয়ায় আমি তার কাছে কৃতজ্ঞ। আমি মনোনীত হলে একজন সংসদ সদস্য হিসেবে নয়, বঙ্গবন্ধুর আদর্শের একজন কর্মী হিসেবে আমি আমার এলাকাবাসীর জন্য কাজ করবো’

আবেগাপ্লুত বুবুলি আরো বলেন, স্বামী হারিয়ে আমি যখন সবকিছু হারিয়ে ফেলেছিলাম, তখন আমি প্রধানমন্ত্রীর দিকে তাকিয়েছি। আমি তার কাছ থেকেই শোককে শক্তিতে পরিণত করার প্রেরণা পেয়েছি। আমার স্বামী প্রয়াত লোকমান হক নরসিংদীর একজন জনপ্রিয় মেয়র ছিলেন। তাকে হারানোর পর গত সাত বছর ধরে আমি শোকার্ত। কিন্তু আমি যখন দেখি আমার নেত্রী শোককে শক্তিতে রূপান্তরিত করে এগিয়ে যাচ্ছেন তখন আমি তার কাছ থেকে প্রেরণা পাই। তিনি নিজেও বাবা-মা ও ভাই-বোনকে হারানোর পরও বাংলার মানুষের মুখে হাসি ফোটানোর জন্য অক্লান্ত পরিশ্রম করে যাচ্ছেন। তাদের সবাইকে হারিয়েও তিনি যেভাবে এগিয়ে চলেছেন সেভাবে এগিয়ে যেতে চাই আমিও। তিনি আমাকে প্রেরণা যুগিয়েছে। আমিও আমার শোককে শক্তিতে পরিণত করে এলাকাবাসীর জন্য কাজ করতে চাই।’

বাংলাদেশ এগিয়ে যাচ্ছে। উন্নয়নের এই অগ্রযাত্রাতে নরসিংদীতে আপনি কীভাবে কাজ করে যেতে যান ভবিষ্যত দিনগুলোতে? এমন প্রশ্নের উত্তরে তিনি বলেন, ‘নরসিংদী ছিল একটি জরাজীর্ণ শহর। এই এলাকার মানুষ আসলে এর আগে স্বপ্নও দেখতে জানত না। একজন জনপ্রতিনিধি হিসেবে কী কী কাজ করা সম্ভব ও কীভাবে তা বাস্তবায়ন সম্ভব, তা যে ব্যক্তি করে দেখিয়েছে তিনিই লোকমান হোসেন।’

প্রয়াত লোকমান হোসেন ২০০৪ সালে নরসিংদী জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক থাকাকালে প্রথমবারের মত পৌর নির্বাচনে অংশ নিয়ে পৌর চেয়ারম্যান নির্বাচিত হন।

উন্নয়নের ধারাবাহিকতা ধরে রাখার জন্য ২০১১ সালের ১৭ জানুয়ারির নির্বাচনে তিনি বিপুল ভোটের ব্যবধানে দ্বিতীয়বারের মতো মেয়র নির্বাচিত হন। তিনি এই নরসিংদীর জন্য কাজ করে গেছেন। শহরের উন্নতি ঘটিয়েছেন। রাস্তাঘাট পাকাকরণ থেকে শুরু করে ড্রেনেজ ব্যবস্থার উন্নতিকরণ করা ও বিভিন্ন সৌন্দর্যবর্ধন কাজ তিনি করে গেছেন।

বুবুলি বলেন, ‘আমি মনে করি একজন নারী যখন সমাজসেবার ব্রত নিয়ে এগিয়ে যায়। তখন সেই সমাজের অগ্রগতি কেউ রুখতে পারে না। আমাদের মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর এটাই সবচাইতে বড় উদাহরণ। আমি আমার এলাকাবাসীকে পাশে নিয়ে একজন কর্মী হিসেবে এগিয়ে যেতে চাই।’

প্রসঙ্গত, ২০১১ সালের ১ নভেম্বর নরসিংদী শহর আওয়ামী লীগের তৎকালিন সাধারণ সম্পাদক ও পৌর মেয়র লোকমান হোসেনকে জেলা আওয়ামী লীগ কার্যালয়ে সন্ত্রাসীরা গুলি করে হত্যা করে।

সন্তানদের সঙ্গে বুবলী। ইনসেটে নিহত স্বামী লোকমান হোসেন


  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Print

শীর্ষ খবর/আ আ

সংবাদটি পড়া হয়েছে 1074 বার