সোনারগাঁয়ে যুবলীগ সভাপতির বিরুদ্ধে অপহরন ও চাঁদাবাজির মামালা করেছে ছাত্রলীগ নেতা

Pub: মঙ্গলবার, এপ্রিল ২৩, ২০১৯ ৯:২৬ অপরাহ্ণ   |   Upd: মঙ্গলবার, এপ্রিল ২৩, ২০১৯ ৯:২৬ অপরাহ্ণ
 
 
 

শীর্ষ খবর ডটকম

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

স্টাফ রিপোর্টার, নারায়ণগঞ্জ : নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁও উপজেলা যুবলীগের সভাপতি রফিকুল ইসলাম নান্নুর বিরুদ্ধে একটি ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠানের ম্যানেজার ও অফিস সহকারীকে অপহরন করে ১০ লাখ টাকা চাঁদা দাবির অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় ওই ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠানের মালিক জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সহ-সভাপতি সোহাগ রনি বাদি হয়ে মঙ্গলবার (২৩ এপ্রিল) বিকেলে সোনারগাঁও থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেছেন। এ ঘটনায় পুলিশ দুইজনকে গ্রেফতার করেছে। ঘটনার পর মঙ্গলবার বিকেলে অপহৃতদের উদ্ধার করেছে পুলিশ।
অভিযোগে ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠানের মালিক সোহাগ রনি উল্লেখ করেন, উপজেলার মোগরাপাড়া ইউনিয়নের কামারগাঁও মেঘনা ইকোনোমিক জোনে তার ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান সুলতান কনষ্ট্রাকশন লিঃ দীর্ঘদিন ধরে ঠিকাদারী কাজ করে আসছে। কিছুদিন ধরে সোনারগাঁও উপজেলা যুবলীগের সভাপতি রফিকুল ইসলাম নান্নুর নির্দেশে মোঃ ফয়সাল, মুশফিকুর রহমান সিয়াম, এসকে সজিব, সুমন, শান্ত, রানা, ফয়সাল, সাগরসহ আরো ৫-৬ জন চাঁদাবাজ তার কাছ থেকে ১০ লাখ টাকা চাঁদা দাবি করে। চাঁদা দিতে অস্বীকার করায় মঙ্গলবার দুপুরে তার ম্যানেজার জুয়েল ও অফিস সহকারী ইয়াসিন আরাফাতকে সোনারগাঁও শপিং কমপ্লেক্সের সামনে থেকে জোড়পূর্বক অপহরন করে মোগড়াপাড়া গোহাট্টা গ্রামের দুলালের বাড়ির বেলের মাঠে নিয়ে যায়। এসময় তারা জুয়েলকে মারধর করে তার কোম্পানীর নির্বাহী পরিচালক রিন্টুকে ফোন দিয়ে ১০ লাখ টাকা মুক্তিপন দাবি করে।
এ ঘটনায় সুলতান কনষ্ট্রাশনের মালিক ও নারায়ণগঞ্জ জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সহ সভাপতি সোহাগ রনি বাদি হয়ে সোনারগাঁও উপজেলা যুবলীগের সভাপতি রফিকুল ইসলাম নান্নুকে প্রধান আসামী করে ৯ জনের নাম উল্লেখ করে ও আরো ৫-৬ জনকে অজ্ঞাত আসামী করে মঙ্গলবার বিকেলে সোনারগাঁও থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেছেন।
সুলতান কনষ্ট্রাশনের মালিক সোহাগ রনি জানান, আমার অফিসের লোকজনকে ১০ লাখ টাকা চাঁদার জন্য অপহরন করা হয়েছে। সোনারগাঁও থানা পুলিশের সহযোগিতায় বিকেলে অপহৃতদের উদ্ধার করেছি।
সোনারগাঁও উপজেলা যুবলীগের সভাপতি রফিকুল ইসলাম নান্নুর সাথে মোবাইল ফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি জানান, আমি মঙ্গলবার সারাদিন সোনারগাঁও উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যানের সাথে নারায়ণগঞ্জে ছিলাম। এ ঘটনার ব্যাপারে আমি কিছুই জানি না। সোহাগ রনি নিজেই নাটক সাজিয়ে আমাকে ফাঁসাতে চাইছে।
সোনারগাঁও থানার ওসি মনিরুজ্জামান মনির জানান, অপহরনের বিষয়ে একটি অভিযোগ নেওয়া হয়েছে। এ ঘটনার সাথে জড়িত সন্দেহে মোঃ ফয়সাল ও মুশফিকুর রহমান সিয়াম নামের দুজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে।


  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Print

শীর্ষ খবর/আ আ