fbpx
 

নেতৃত্ব শূন্যতায় কবি নজরুল কলেজ ছাত্রলীগ

Pub: রবিবার, মে ১৯, ২০১৯ ৬:০৭ অপরাহ্ণ   |   Upd: রবিবার, মে ১৯, ২০১৯ ৬:০৭ অপরাহ্ণ
 
 
 

শীর্ষ খবর ডটকম

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

নেতৃত্ব শূন্যতায় ভূগছে কবি নজরুল সরকারি কলেজ ছাত্রলীগ। নেতৃত্ব শূন্যতায় ঝিমিয়ে পড়েছে কবি নজরুল সরকারি কলেজ ছাত্রলীগের সাংগঠনিক কার্যক্রম।

প্রায় তিন মাস ধরে ক্যাম্পাসে আসে না ছাত্রলীগের সভাপতি হাবিবুর রহমান মোহন। তবে মাঝে মধ্যে সাধারণ সম্পাদক মাইনুল হাওলাদারকে ক্যাম্পাসে দেখা গেলেও  কেন্দ্রীয় কর্মসূচিতে নেই কোনো অংশগ্রহণ। 

খোঁজ নিয়ে দেখা গেছে, ছাত্রলীগের গঠনতন্ত্রকে উপেক্ষা করে কবি নজরুল সরকারি কলেজ ছাত্রলীগের এক বছরের কমিটি কৌশলে কাটিয়ে দিচ্ছে কয়েক বছর। বছর-বছর সম্মেলন হওয়ার কথা থাকলেও হচ্ছে না সম্মেলন। সম্মেলন না হওয়ায় নতুন নেতৃত্বও বের হচ্ছে না। ফলে নেতাকর্মীদের মাঝে হতাশা দেখা দিয়েছে। কবি নজরুল সরকারি কলেজ ছাত্রলীগের মেয়াদোত্তীর্ণ হয়েছে অনেক আগেই। মেয়াদোত্তীর্ণর পর পূর্ণাঙ্গ কমিটি গঠন করে মোহন-মাইনুল তারও মেয়াদ শেষ।

কবি নজরুল সরকারি কলেজের বর্তমান কমিটির গঠিত হয়েছে গঠন করা হয় ২০১৬ সালে ১৭ নভেম্বর। তৎকালীন ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় সভাপতি সাইফুর রহমান সোহাগ ও সাধারণ সম্পাদক এস এম জাকির স্বাক্ষরিত ৮ সদস্য বিশিষ্ট কমিটির মেয়াদ দেয়া হয় ১ বছর। ২০১৭ সালের ১৭ নভেম্বর এই কমিটির মেয়াদোত্তীর্ণ হয়। ২৭১ জনকে নিয়ে ২০১৮ সালের ৪ মে মেয়াদোত্তীর্ণ কমিটি পূর্ণাঙ্গ করে কবি নজরুল সরকারি কলেজে ছাত্রলীগ। মেয়াদোত্তীর্ণের পর এই পূর্ণাঙ্গ কমিটি নিয়েও স্বজনপ্রীতির অভিযোগ তুলেছিলো ছাত্রলীগের ত্যাগী নেতাকর্মীরা। এই অভিযোগ আমলে নেয়নি মোহন-মাইনুল কমিটি।

নাম প্রকাশ না করার শর্তে কবি নজরুল সরকারি কলেজ ছাত্রলীগের কয়েকজন নেতাকর্মী ব্রেকিংনিউজকে বলেন, ‘কবি নজরুল কলেজ ছাত্রলীগের সাংগঠনিক কার্যক্রম নেই বললেই চলে। সভাপতি দীর্ঘ দিন কলেজে আসে না। তাই কেন্দ্র ঘোষিত কর্মসূচিতে দেখা মিলছে না কবি নজরুল সরকারি কলেজ ছাত্রলীগ। আমাদের ক্যাম্পাসে ছাত্রলীগকে গতিশীল করতে দরকার সম্মেলন বা নতুন কমিটির। নতুন কমিটি দ্রুত না হলে ছাত্রলীগের বিশৃঙ্খলা তৈরি হবে। তবে নেতৃত্ব বাছাইয়ের ক্ষেত্রে ত্যাগী ও নিয়মিত শিক্ষার্থীদের মধ্য থেকেই বাছাই করারও দাবি তাদের।’

এবিষয়ে জানতে চাইলে বাংলাদেশ ছাত্রলীগের সভাপতি রেজওয়ানুল হক শোভন ব্রেকিংনিউজকে বলেন, ‘কবি নজরুল সরকারি কলেজ ছাত্রলীগের মেয়াদোত্তীর্ণ কমিটি বিষয়টি আমাদের নলেজে রয়েছে। আমরা ছাত্রলীগের কার্যক্রম গতিশীল করতে মেয়াদোত্তীর্ণ কমিটিগুলোকে ভেঙে নিয়মিত ও মেধাবী ছাত্রদের দিয়ে নতুন কমিটি গঠনের কার্যক্রম দ্রুতই শুরু করবো।’


  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Print

শীর্ষ খবর/আ আ