সুইডেন-প্রবাসী রানার পরিচয়-কাণ্ড

Pub: রবিবার, সেপ্টেম্বর ২, ২০১৮ ১০:৪৮ অপরাহ্ণ   |   Upd: রবিবার, সেপ্টেম্বর ২, ২০১৮ ১০:৪৮ অপরাহ্ণ
 
 
 

শীর্ষ খবর ডটকম

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সুইডেন আওয়ামী লীগের রাজনীতির সঙ্গে গত কয়েক বছর ধরে সম্পৃক্ত সুইডেন প্রবাসী এ কে এম সিরাজুল হক খান রানা। নিজেকে পরিচয় দেন কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগের যুব ও ক্রীড়া উপকমিটির সদস্য, সুইডেন আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি হিসেবে।

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নবীনগর থেকে সম্ভাব্য সংসদ সদস্য প্রার্থী হিসেবে নিজেকে ঘোষণা করেছেন রানা। তার আরও দাবি, ঢাকা সরকারি বাণিজ্যিক মহাবিদ্যালয়ের জিএস ছিলেন তিনি।

কিন্তু সংশ্লিষ্ট মহলে যোগাযোগ করে কোনো সত্যতা পাওয়া যায়নি রানার দাবি সম্পর্কে।

কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগের যুব ও ক্রীড়াবিষয়ক সম্পাদক এবং যুব ও ক্রীড়া উপকমিটর সদস্যসচিব হারুনুর রশীদের কাছে এ ব্যাপারে জানতে চাইলে টেলিফোনে তিনি বলেন, ‘এ নামে প্রবাসে আমাদের কোনো সদস্য নেই। তার নাম কমিটিতে প্রস্তাব করা হয়েছিল, কিন্তু তার বিরুদ্ধে নানা অভিযোগ থাকায় তাকে উপকমিটির প্রাথমিক তালিকায় রাখা হয়নি। কেউ যদি উপকমিটির সদস্য পরিচয় দিয়ে থাকে তাহলে তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে।’

রানার সুইডেন আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি পরিচয় সম্পর্কে জানতে চাইলে নাম প্রকাশ না করার শর্তে সুইডেন আওয়ামী লীগের এক নেতা বলেন, ‘রানা খান সুইডেন আওয়ামী লীগের একাংশের সহ-সভাপতি ছিলেন। বর্তমানে তিনি ১৪ জন সহ-সভাপতির একজন। ‘সিনিয়র সহ-সভাপতি’ বলে সুইডেন আওয়ামী লীগে কোনো পদ নেই।’

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নবীনগর থেকে সম্ভাব্য সংসদ সদস্য প্রার্থী হিসেবে ঘোষণা দিলেও রানা খানের বিরুদ্ধে এলাকায় রয়েছে নারী কেলেংকারিসহ নানা অভিযোগ। বেসরকারি টেলিভিশন ইনডিপেন্ডেন্টের তালাশ অনুষ্ঠানের ১৩৫ নম্বর পর্বে দেখানো হয় তার বিরুদ্ধে ওঠা এ অভিযোগ সম্পর্কে।

এ ব্যাপারে সুইডেনে বসবাসরত রানা খানের ব্যক্তিগত মোবাইল ফোনে কয়েক দিন চেষ্টা করেও তার বক্তব্য পাওয়া যায়নি। ম্যাসেনজারে ব্যস্ত আছেন, পরে ফোন করছেন- তিনি এ রকম ম্যাসেজ দিলেও  পরে আর ফোন করেননি।


  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Print

শীর্ষ খবর/আ আ

সংবাদটি পড়া হয়েছে 1100 বার