fbpx
 

টুকুর মৃত্যুতে ফ্রান্স ছাত্রদল সভাপতি শামীমের গভীর শোক প্রকাশ

Pub: Monday, November 4, 2019 4:56 PM
 
 
 

শীর্ষ খবর ডটকম

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

মানিকগঞ্জ জেলা ছাত্রদলের সাবেক সভাপতি মানিকগঞ্জ সরকারী দেবেন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয় কলেজের সাবেক জিএস, ভিপি, মানিকগঞ্জ জেলা যুবদলের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক এবং মানিকগঞ্জ জেলা যুবদলের বর্তমান সভাপতি কাজী রায়হান উদ্দিন টুকুর অকাল মৃত্যুতে বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী ছাত্রদল, ফ্রান্স শাখার সভাপতি মোঃ ফজলুল করিম শামীম গভীরভাবে শোক প্রকাশ করেছেন।
আজ এক প্রেস বিজ্ঞপ্তির মাধ্যেমে শামীম এই শোক প্রকাশ করে বলেন,

ছাত্রদলের অন্যতম সেরা ও যুগান্তকারী নেতা, রাজপথের আন্দোলনের অগ্নিমশাল, যুবদলের মুকুটহীন সম্রাট, মানিকগঞ্জ সরকারী দেবেন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয় কলেজের সাবেক জিএস, ভিপি, মানিকগঞ্জ জেলা ছাত্রদলের সাবেক সফলতম সভাপতি, মানিকগঞ্জ জেলা যুবদলের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক এবং মানিকগঞ্জ জেলা যুবদলের বর্তমান সংগ্রামী সভাপতি কাজী রায়হান উদ্দিন টুকু ভাইয়ের অকাল মৃত্যুতে (ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাহি রাজিউন) ওনার রূহের মাগফিরাত কামনা করছি ও ওনার পড়িবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জ্ঞাপন করছি এবং মহান আল্লাহ্‌ তায়ালা যেন ভাইকে জান্নাতুল ফেরদৌস দান করেন সেই দোয়া করছি।
মানিকগঞ্জ জেলা বিএনপির বর্তমান কঠিনতম দুঃসময়ে একজন হ্যামিলিয়িনের বাঁশিওয়ালা যিনি তাঁর সততা, মেধা, শহীদ রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের শক্তিশালী হাতিয়ার, দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া ও তারুণ্যের অহংকার জনাব তারেক রহমানের বিশ্বস্ত হাতিয়ার, জেল জুলুম হামলা মামলার শিকার অকুতোভয় সৈনিক, রাজপথের আন্দোলনের অগ্নিমশাল, মানিকগঞ্জ জেলার বিএনপির বাঘা বাঘা নেতারা যখন সবাই আন্দোলন সংগ্রামে চুড়ি পরে ঘরে বসে আছেন সেই সময়ে একমাত্র যোগ্য নেতৃত্ব যিনি সবাইকে ছাপিয়ে মৃত্যুর আগ মুহূর্ত পর্যন্ত রাজপথে লড়ে গেছেন অকুতোভয়ভাবে তিনি আমাদের সকলের শ্রদ্ধার কাজী রায়হান উদ্দিন টুকু ভাই।

ভাই এভাবে চলে গেলেন? কোনভাবেই মেনে নিতে পারছিনা। কতো কথা ছিল, কতো কমিট্মেণ্ট ছিল ভাই। একসাথে পুরো মানিকগঞ্জ জেলা বিএনপিকে আবার নতুন করে অনেক অনেক উজ্জীবিত ও শক্তিশালি করে মানিকগঞ্জকে আবার বিএনপির ঘাঁটি হিসেবে পুরনো গৌরব ফিরিয়ে দেব। ভাই বিজয়ের মিছিলে সবার সামনে আপনি থাকবেন পিছনে আমরা। মানিকগঞ্জ শহর সবচেয়ে যোগ্য ও সর্বসেরা মেয়র পাবে আর সে মেয়র কাজী রায়হান উদ্দিন টুকুকে।
ভাই সীমাহীন কষ্ট ও যন্ত্রণায় ভাসিয়ে এভাবে চলে এতো অভিমান বুকে নিয়ে চলে গেলেন আর আমাদের করে গেলেন অভিভাবকহীন ও জেলা যুবদলকে করে গেলেন নেতৃত্বহীন এবং আগামী প্রজন্মকে করে গেলেন রাজনৈতিক সুউচ্চ শিক্ষকহীন। এতো এতো শূন্যতা কোনদিন কোনভাবেই পূরণ হবার নয়।
কাজী রায়হান উদ্দিন টুকু ভাই আপনি সারা জীবন আমাদের অনুপ্রেরণা আর ভালোবাসার সুউচ্চ যায়গায় থাকবেন।
উল্লেখ্য ৩ নভেম্বর, রোজ রবিবার সাটুরিয়া থানায় দায়েরকৃত রাজনৈতিক প্রতিহিংসামূলক বিস্ফোরক মামলায় অগ্রিম জামিন নিতে হাইকোর্টে গেলে সেখানে আকস্মিকভাবে হার্ট এট্যাক জনিত কারনে অসুস্থ হয়ে পরলে ঢাকা মেডিক্যাল হাসপাতালে নেয়ার পথে মানিকগঞ্জ জেলা যুবদলের সভাপতি কাজী রায়হান উদ্দিন টুকু সন্ধ্যা ৭ ঘটিকায় ইন্তেকাল করেন।


  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Print

শীর্ষ খবর/আ আ