ক্যান্সার নিয়ন্ত্রণে রাখবে পেঁয়াজ

Pub: সোমবার, আগস্ট ১৩, ২০১৮ ২:২৪ পূর্বাহ্ণ   |   Upd: সোমবার, আগস্ট ১৩, ২০১৮ ২:২৪ পূর্বাহ্ণ
 
 
 

শীর্ষ খবর ডটকম

অসংখ্য ছোট ছোট কোষের সমন্বয়ে প্রতিটি প্রাণীদেহ গঠিত। নির্দিষ্ট সময় পর পর এইসব কোষের মৃত্যু ঘটে। আবার সেখানে জন্ম নেয় নতুন কোষ। সাধারণভাবে বলতে গেলে যখন এই কোষগুলো কোনও কারণে অনিয়ন্ত্রিতভাবে বাড়তে থাকে তখনই নানা ধরনের টিউমার দেখা দেয়। যা অনেক সময় ক্যান্সারে পরিণত হয়।

ক্যান্সারের সুনির্দিষ্ট কোনও কারণ এখনও খুঁজে পায়নি চিকিৎসাবিজ্ঞান। তবে বয়স বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে ক্যান্সারের ঝুঁকি বাড়ে। বিশ্বে যত লোক ক্যান্সারে আক্রান্ত তাদের শতকরা ৭০ ভাগেরই বয়স ৬০ বছরের বেশি।

মূলত খাবার এবং জীবনযাপনের ধারার সাথে ক্যান্সারের গভীর সম্পর্ক রয়েছে। ধুমপান বা মদ্যপানের ফলে ফুসফুস, মুখ ও কণ্ঠনালীর এবং যকৃৎ বা লিভারে ক্যান্সার হতে পারে। পান-সুপারি, জর্দা, মাংস, অতিরিক্ত লবণ, চিনি ইত্যাদি খাবারের সাথেও ক্যান্সারের যোগসূত্র রয়েছে।

যারা সাধারণত শারীরিক পরিশ্রম কম করে তাদের মধ্যেও ক্যান্সারের প্রবণতাটা বেশি। ক্যান্সারের সাথে জিনগত সম্পর্ক রয়েছে বলেও প্রমাণ পাওয়া গেছে। এই কারণে পরিবারের কারো যদি ক্যান্সারে আক্রান্ত হওয়ার ঘটনা থাকে তাহলে অন্যদেরও ক্যান্সারে আক্রান্ত হওয়ার ঝুঁকি অনেকখানি বেড়ে যায়।

পৃথিবীতে ২০০ প্রকারেরও বেশি ক্যান্সার শনাক্ত করেছেন গবেষকরা। ক্যান্সারের চিকিৎসায় সঠিক কোনও পদ্ধতি এখনও বের করা সম্ভব হয়নি। তবে প্রাথমিকভাবে ক্যান্সার ধরা পড়লে অনেক সময়ই তা থেমে আরোগ্য লাভ করা যায়।

সম্প্রতি চিকিৎসাবিজ্ঞানীরা জানিয়েছেন, ক্যান্সার প্রতিরোধে পেঁয়াজ দারুণ ভূমিকা রাখতে পারে। চলুন পাঠক দেখে নিই ক্যান্সার নিয়ন্ত্রণে পেঁয়াজের উপকারিতা:

যৌন ইচ্ছা বাড়ায়:‌ মানুষের যৌন ইচ্ছা বৃদ্ধি করে পেঁয়াজ। প্রতিদিন এক টেবিল চামচ পেঁয়াজ ও এক চামচ আদার রস মিশিয়ে খেয়ে নিন। দিনে তিনবার। আপনার যৌন ইচ্ছা কয়েকগুণ বৃদ্ধি পাবে।

সর্দি-কাশিতে উপকারী:‌ ডাক্তারের পরামর্শ অনুযায়ী প্রতিদিন পরিমাণমতো পেঁয়াজের রসের সঙ্গে মধু মিশিয়ে খেলে সর্দি–কাশির সমস্যা থাকে না।

অ্যানিমিয়া বা রক্তস্বল্পতা রোধ:‌ অ্যানিমিয়া রোধে পেঁয়াজের গুরুত্ব অপরিসীম। প্রতিদিন পেঁয়াজ খান, গুঁড় ও পানি সহযোগে। এর ফলে শরীরে আয়রনের মাত্রা বৃদ্ধি পায়। শরীরে নতুন রক্ত তৈরিতে আয়রনের গুরুত্ব অস্বীকার করা যায় না।

ক্যান্সার রোধ:‌ প্রতিদিন পেঁয়াজ খেলে ক্যান্সার রোধ করা সম্ভব। ক্যান্সার কোষগুলো দ্রুত বৃদ্ধি পায়। যা রোধে প্রতিদিন পেঁয়াজ খান। দেখবেন শরীরে একটা ক্যান্সার প্রতিরোধক কোষ তৈরি হয়ে যাবে।

ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণ:‌ পেঁয়াজে ক্রোমিয়াম থাকে। যা ব্ল্যাড সুগার নিয়ন্ত্রণ করে। শরীরকে ঠান্ডা রাখে।

রক্ত চলাচল স্বাভাবিক করে:‌ নিয়মিত পেঁয়াজ খেলে রক্ত চলাচল স্বাভাবিক থাকে। যার ফলে হার্টের অসুখের সম্ভাবনা অনেক কমে যায়।

দাঁতের সংক্রমণ রোধ:‌ দাঁতের সংক্রমণ রোধ করতেও পেঁয়াজের জুরি মেলা ভার। ২–৩ মিনিট পেঁয়াজ চিবিয়ে খান। তাতে দাঁতে লুকিয়ে থাকা জীবাণুগুলো মরে যাবে। কমবে সংক্রমণের সম্ভাবনাও।

এছাড়াও ক্যান্সার নামের মরণব্যাধি থেকে নিরাপদে থাকতে প্রতিদিন কিছু না কিছু পরিশ্রম করুন। প্রত্যেকদিন নিয়মিত কিছু ব্যায়াম করা যেমন-দৌড়ানো, সাইকেল চালনো, নাচ করা, হাঁটার অভ্যেস করুন। ধূমপান বা মদ্যপান ছেড়ে দিন। পান-সুপারি, জর্দা, তামাকপাতা খাওয়া বন্ধ করুন। চর্বিজাতীয় খাবার কম খেয়ে প্রচুর পরিমাণে শাক-সবজি, ফলমূল এবং আঁশজাতীয় খাবার খাওয়া খান। প্রয়োজনে খাবার তালিকা থেকে মাংস বাদ দিন। তথ্যসূত্র: ইন্টারনেট, ওয়েবসাইট

Print

শীর্ষ খবর/আ আ

সংবাদটি পড়া হয়েছে 1121 বার

আজকে

  • ৯ই আশ্বিন, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
  • ২৪শে সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ইং
  • ১৩ই মুহাররম, ১৪৪০ হিজরী
 

সোশ্যাল নেটওয়ার্ক

 
 
 
 
 
আগষ্ট ২০১৮
রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি
« জুলাই   সেপ্টেম্বর »
 
১০১১
১২১৩১৪১৫১৬১৭১৮
১৯২০২১২২২৩২৪২৫
২৬২৭২৮২৯৩০৩১  
 
 
 
 
WP Facebook Auto Publish Powered By : XYZScripts.com