fbpx
 

সুইস ব্যাংকে হু হু করে বাড়ছে বাংলাদেশিদের টাকা

Pub: শুক্রবার, জুন ২৮, ২০১৯ ৫:১৮ অপরাহ্ণ
 
 
 

শীর্ষ খবর ডটকম

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

গ্রাহকের আয়ের উৎসসহ নানা গোপনীয়তা বজায় রাখার ক্ষেত্রে সুইস ব্যাংকগুলোর সুনাম। এজন্য বিশ্বের ধনীরা এই ব্যাংকে তাদের টাকা জমা রাখেন। বাংলাদেশি ধনীদেরও আগ্রহের কেন্দ্রবিন্দুতে এই ব্যাংকগুলো। দিনের পর দিন সেখানে বাংলাদেশিদের আমানতের পরিমাণ আবারো বেড়েছে।

২০১৮ সালে বাংলাদেশিদের মোট সঞ্চয়ের পরিমাণ দাঁড়িয়েছে ৬১ কোটি ৭৭ লাখ সুইস ফ্র্যাংক। প্রতি ফ্র্যাংক ৮৭ টাকা ধরলে বাংলাদেশি মুদ্রায় দাঁড়ায় প্রায় পাঁচ হাজার ৩৭৩ কোটি টাকা। জমাকৃত এ টাকার পরিমাণ দেশের কমপক্ষে ১২টি বেসরকারি ব্যাংকের পরিশোধিত মূলধনের সমান।

বৃহস্পতিবার (২৭ জুন) প্রকাশ করা সুইজারল্যান্ডের কেন্দ্রীয় ব্যাংক সুইস ন্যাশনাল ব্যাংকের (এসএনবি) ‘ব্যাংকস ইন সুইজারল্যান্ড’ শীর্ষক প্রতিবেদনে এ তথ্য উঠে এসেছে। 

প্রতিবেদনের তথ্য অনুযায়ী, একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের বছর সুইস ব্যাংকগুলোতে টাকা পাচার হয়েছে এক হাজার ২৭৪ কোটি টাকা। ২০১৭ সালে ছিল চার হাজার ৬৯ কোটি টাকা। এ হিসাবে বছরে এক হাজার ২৩৪ কোটি টাকা বেড়েছে। 

সুইস কেন্দ্রীয় ব্যাংকের ঘোষণা অনুযায়ী, নাগরিকত্ব গোপন রেখেছে- এমন বাংলাদেশিদের জমা রাখা অর্থ এই হিসাবের মধ্য রাখা হয়নি। এছাড়া গচ্ছিত সোনা কিংবা মূল্যবান সামগ্রীর আর্থিক হিসাবও বাইরে রাখা হয়েছে।

পরিসংখ্যান অনুযায়ী, ২০১৬ সাল পর্যন্ত টানা ছয় বছর সুইস ব্যাংকে বাংলাদেশিদের আমানত বাড়ে। ২০১৭ সালে খানিকটা কমলেও ২০১৮ সালে এসে তা আবারো বেড়েছে।

অপরদিকে সুইস ব্যাংকে বিশ্বের অন্যান্য কয়েকটি দেশের আমানতও বেড়েছে। এতে এ বছরও বিশ্বে প্রথম অবস্থানে রয়েছে যুক্তরাজ্য। তবে সুইস ব্যাংকে সারা বিশ্বের আমানত রাখা কমেছে। আগামী বছরে ২০১৯ সালের রিপোর্ট প্রকাশিত হবে।


  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Print

শীর্ষ খবর/আ আ