করোনা দলে থাকা অনুপ্রবেশকারী চেনার সুযোগ করে দিয়েছে: নাছিম

Pub: Sunday, July 5, 2020 6:37 PM
 
 
 

শীর্ষ খবর ডটকম

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

করোনা ভাইরাসের সংকটকালে দলে থাকা অনুপ্রবেশকারী চেনার সুযোগ করে দিয়েছে বলে জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দীন নাছিম। 

শনিবার (৪ জুলাই) বিয়ন্ড দ্যা প্যানডেমিকের ৯ম পর্বের অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন। বরাবরের মতোই পর্বটি সরাসরি প্রচারিত হয় আওয়ামী লীগের অফিশিয়াল ফেসবুক পেজ এবং অফিশিয়াল ইউটিউব চ্যানেলে একই সঙ্গে বিভিন্ন গণমাধ্যম দেখা যায়। 

এবারের পর্বের আলোচনার বিষয় ছিলো ‘করোনা সংকট মোকাবিলায় তৃণমূলের ভূমিকা’। এই সঙ্কটে মানুষকে সচেতন করতে আওয়ামী লীগের পদক্ষেপ, করোনা চিকিৎসা নিয়ে গুজব মোকাবেলা, দলের জনপ্রতিনিধিদের জন্য আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় বার্তা, ঘূর্ণিঝড় আম্পানে ক্ষয়ক্ষতি কমাতে কি ধরনের পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছিল এবং পরবর্তীতে কর্মহীনদের সহায়তা নিয়ে আলোচনা করা হয়।   

প্রধানমন্ত্রী বঙ্গবন্ধুকন্যা দেশরত্ন জননেত্রী শেখ হাসিনার বিশেষ সহকারী ব্যারিস্টার শাহ আলী ফরহাদ সঞ্চালনায় আলোচক হিসেবে যুক্ত হয়ে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম, সাংগঠনিক সম্পাদক অ্যাডভোকেট আফজাল হোসেন, চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দিন, ভোলা- ৪ আসনের সংসদ সদস্য আবদুল্লাহ আল ইসলাম জ্যাকব, কক্সবাজার- ২ আসনের সংসদ সদস্য আশেক উল্লাহ রফিক, খুলনা- ৬ আসনের সংসদ সদস্য আক্তারুজ্জামান বাবু এবং বাংলাদেশ কৃষক লীগের সাধারণ সম্পাদক উম্মে কুলসুম স্মৃতি। 

আলোচনায় যুক্ত হয়ে আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম বিভিন্ন সময়ে দলের ইমেজ কাজে লাগাতে আওয়ামী লীগে ঢুকে পড়া অনুপ্রবেশকারীদের সম্পর্কে বলেন, আওয়ামী লীগ উপমহাদেশের অন্যতম প্রাচীণ দল। এ দলটি মানুষের কল্যাণে সৃষ্টি থেকেই বঙ্গবন্ধুর নেতৃত্বে মানুষের আশা আকাঙ্ক্ষার প্রতীক হয়ে মানুষের জন্য কাজ করেছে। সেই বিবেচনায় কোন চ্যালেঞ্জ নিতে আওয়ামী লীগ কখনো পিছপা হয়নি। আওয়ামী লীগের মূল শক্তি বাংলাদেশের মানুষের জনগণ, এর প্রাণশক্তি আওয়ামী লীগের তৃণমূলের নেতা-কর্মীরা। সময়ের ব্যবধানে আওয়ামী লীগ সরকার দীর্ঘদিন ক্ষমতায় থাকার কারণে দলে কিছু সুবিধাবাদী লোক ঢুকে পড়েছে। সকল ক্ষেত্রে আমরা এদের দলে ঢুকার পথ বন্ধ করতে পারি নাই, এটা সত্য। তবে এদের দল থেকে বের কর দেয়ার প্রক্রিয়া চলমান আছে। 

তিনি আরও বলেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনা আমাদের নির্দেশ দিয়েছেন যারা দলের ক্ষতি করে, নেতা-কর্মীদের ভাবমূর্তি ক্ষুন্ন করে সেই সকল হাইব্রিডদের দৃঢ়ভাবে মোকাবেলা করবো। আজকে এই করোনা দূর্যোগও কিন্তু আমাদের নেতা-কর্মী চেনার সুযোগ করে দিয়েছেন যে কারা জনগণের পাশে আছে। আওয়ামী লীগের ত্যাগী ও দুর্দিনের নেতা-কর্মীরাই মৃত্যুভয়কে উপেক্ষা করে মানুষের পাশে আছেন।

আওয়ামী লীগে যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক বলেন, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য মো. নাসিম এই করোনা দূর্যোগে মানুষের পাশে দাঁড়াতে গিয়ে করোনা আক্রান্ত হয়ে শহীদ হয়েছেন। আওয়ামী লীগের আরো অনেক নেতা-কর্মীরাই জীবন দিয়ে প্রমাণ করেছে তারা দুর্যোগে দুর্বিপাকে মানুষের পাশে আছে। কিন্তু যারা সুবিধাভোগী তাদের অনেককেই এখন আর খুঁজে পাওয়া যাচ্ছেনা। এই সময়ে এদেরকে চেনারও একটা সুযোগ হয়েছে। এভাবেই এদের চিহ্নিত করে আস্তে আস্তে দল থেকে বের করে দেয়া হবে। 

আওয়ামী লীগের এ নেতা আরও বলেন, সব সময় দলে তৃণমূলের নেতা-কর্মীদের মূল্যায়ন করা হয় এবং মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা এই নেতা-কর্মীদের শক্তিতে বলীয়ান হয়েই দেশ পরিচালনা করে থাকেন। আওয়ামী লীগের অনেক দুর্যোগ এসেছে তখন সুবিধাবাদীরা পাস কাটিয়ে চলেছেন। পরবর্তীতে তারা আস্তাকুড়ে নিক্ষিপ্ত হয়েছেন। আওয়ামী লীগের তৃণমূলের নেতা-কর্মীরা এদের গ্রহণ করেনি।  

এর আগে, বিয়ন্ড দ্যা প্যান্ডেমিকের আটটি পর্ব অনুষ্ঠিত হয়েছে। সর্বশেষ পর্বটি প্রচারিত হয়েছে গত ৩০ জুন। এই পর্বে আলোচকরা করোনা পরবর্তী বাংলাদেশের তরুণদের মধ্যে শিক্ষা ও দক্ষতা বৃদ্ধির জন্য নতুন ভাবনা নিয়ে আলোচনা করেছেন। মাননীয় শিক্ষামন্ত্রী ডা. দিপু মনি এবং শিক্ষা উপমন্ত্রী ব্যারিস্টার মহিবুল হাসান চৌধুরী ছিলেন এই অনুষ্ঠানের অন্যতম আলোচক।


  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Print

শীর্ষ খবর/আ আ