খালেদা জিয়া মুক্তি পাবেন, বিশ্বাস নাসিমের

Pub: সোমবার, এপ্রিল ১৬, ২০১৮ ৬:১৯ অপরাহ্ণ   |   Upd: সোমবার, এপ্রিল ১৬, ২০১৮ ৬:১৯ অপরাহ্ণ
 
 
 

শীর্ষ খবর ডটকম

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

নিজস্ব প্রতিবেদক:
বেগম খালেদা জিয়া আদালতের মাধ্যমে মুক্তি পাবেন বলে বিশ্বাস করেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম। বিএনপি চেয়ারপারসনের কারাগারে যাওয়াকে তিনি ‘দুর্ভাগ্যজনক’ও বলেছেন।

সাবেক প্রধানমন্ত্রীকে ‘অত্যন্ত সম্মানিত নেত্রী’ উল্লেখ করে কারাগারে তার চিকিৎসায় কী ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে তাও জানিয়েছেন মন্ত্রী।

সোমবার দুপুরে সচিবালয়ে সম্মেলন কক্ষে খালেদা জিয়ার চিকিৎসা বিষয়ে সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলছিলেন নাসিম।

স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, ‘খালেদা জিয়া একজন জাতীয় নেত্রী। আদালতের নির্দেশে তিনি আজকে দুর্ভাগ্যজনকভাবে কারাগারে আছেন। এটি আমরা কেউ না চাইলেও আদালতের নির্দেশেই তাকে কারাগারে থাকতে হচ্ছে।’

‘আমি সবময়ই মনে করি, তিনি আদালতে নির্দেশেই মুক্তি পাবেন এবং স্বাভাবিক জীবনযাপন করতে পারবেন।’

‘তারপরও যেহেতু তিনি রাষ্ট্রের নিয়ন্ত্রণেই কারাগারে আছেন, তাই যতদূর সম্ভব আমাদের দায়িত্ব তাকে নিয়মিত চিকিৎসা করা এবং সুস্থ রাখা।’

নাসিম বলেন, ‘তিনি একজন সাবেক প্রধানমন্ত্রী এবং বয়স্ক মহিলা, সে হিসেবে কারাগার জীবনতো সুখকর নয়। সুস্থ, অসুস্থ সব শ্রেণির মানুষের জন্যই কারাগার অনেক কষ্টকর।’

সকালে সংবাদ সম্মেলন করে বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী অভিযোগ করেন কারাগারে তার নেত্রী আরও অসুস্থ হয়ে পড়েছেন। বেসরকারি হাসপাতাল ইউনাইটেডে চিকিৎসার জন্য তাকে মুক্তি দেয়ার দাবি জানান তিনি।

কারাগারে খালেদা জিয়ার চিকিৎসায় পর্যাপ্ত ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে না অভিযোগ করে রিজভীর অভিযোগ, চিকিৎসক যেসব সুযোগ সুবিধার পরামর্শ দিয়েছিলেন, সেগুলোও তাকে দেয়া হয়নি।

তবে নাসিম এসব অভিযোগকে বলার জন্য বলা হিসেবে দেখছেন। তিনি জানান, খালেদা জিয়ার চিকিৎসায় সম্ভব সব কিছুই করা হচ্ছে।

মন্ত্রী বলেন, ‘আমাদের সরকারের আমলে কোন রাজনৈতিক ব্যক্তিত্ব কারাবন্দি অবস্থায় চিকিৎসা পাবে না এটা সমর্থনযোগ্য নয়। এ কথাটি বলা অত্যন্ত দুঃখজনক।’

‘সাবেক এই প্রধানমন্ত্রী আগে থেকেই বেশকিছু রোগে ভুগছিলেন। তার জন্য গঠিত চিকিৎসক প্যানেলের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী বঙ্গবন্ধু মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ে গত ৭ তারিখে বঙ্গবন্ধু মেডিকেল নিয় গিয়ে কয়েক ঘন্টা বেশকিছু চিকিৎসাসহ কতগুলো পরীক্ষা করা হয়েছে। খালেদা জিয়ার ইচ্ছে অনুযায়ী মেডিকেল বোর্ডের বাইরেও চিকিৎসকরা ছিলেন।’

‘বেসরকারি হাসপাতালে চিকিৎসা সম্ভব নয়’

খালেদা জিয়া বন্দী থাকা অবস্থায় বেসরকারি হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়ার দাবি নাকচ করেছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী।

বলেন, ‘এখানে একটি কথা অত্যন্ত পরিষ্কার। আপনি জেল কোডের বাইরে তো কাউকে আপনি চিকিৎসা দিতে পারেন না। এ সুযোগও তো নেই। একমাত্র জেলকোড মেনে মেডিকেল বোর্ডের নির্দেশনা মেনে তাকে চিকিৎসা নিতে হবে। সেভাবেই তার (খালেদা জিয়া) সর্বোত্তম চিকিৎসা তার করা হচ্ছে।’

মন্ত্রী বলেন, ‘মাঝে মধ্যেই বিএনপি নেতারা বলেছেন, সরকারের চিকিৎসা ব্যবস্থার উপর তাদের কোন আস্থা নেই। বিএনপি নেতা মওদূদ আহমদ, তিনি নিজেও জেলে ছিলেন। আমিও তার সাথে ছিলাম। তিনি জানেন, জেলে থাকলে সরকারি ব্যবস্থাপনায় চিকিৎসা নিতে হয়। সেখানে আমি চিকিৎসা নিয়েছি, উনিও নিয়েছেন। এখানে বিএনপি নেতাদের এভাবে কথা বলা ঠিক নয়। এখানে খালেদা জিয়া কারাগারে আছেন সরকারেই দায়িত্ব তার চিকিৎসা করা।’

‘এ কথা মওদুদ সাহেবের মতো বিশেষজ্ঞ আইনজীবী হিসেবে বলা ঠিক হয়নি। এমনকি কোন নেতারই এটা বলা ঠিক নয়। কারাগারে এক সময় চার জাতীয় নেতাকে হত্যা করা হয়েছিল। তখন কোন চিকিৎসা পাওয়া যায়নি। তখন মওদুদ আহমদ আইনমন্ত্রী ছিলেন।’

মন্ত্রী বলেন, জেলকোড অনুসারে অনেক সময় জেলে বা বাইরেও চিকিৎসা করা হয়। এটা সম্পূর্ণরূপে নিয়ন্ত্রণ করে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এবং কারা কর্তৃপক্ষের উপর। আমি স্বাস্থ্যমন্ত্রী হিসেবে মনে করি, বেগম জিয়ার চিকিৎসা বিষয়ে কোন অবহেলা করা হচ্ছে না।

স্বাস্থ্য প্রতিমন্ত্রী জাহিদ মালেক, স্বাস্থ্য ও সুরক্ষা বিভাগের সচিব সিরাজুল ইসলাম, স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক আবুল কালাম আজাদ ও খালেদা জিয়ার চিকিৎসায় নিয়োজিত গঠিত প্যানেলে চিকিৎসকরা এ সময় উপস্থিত ছিলেন।


  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Print

শীর্ষ খবর/আ আ

সংবাদটি পড়া হয়েছে 1065 বার