মেননের বক্তব্যে সংসদ কলঙ্কিত: চরমোনাই পীর

Pub: শুক্রবার, মার্চ ১৫, ২০১৯ ৫:৩৯ অপরাহ্ণ   |   Upd: শুক্রবার, মার্চ ১৫, ২০১৯ ৫:৩৯ অপরাহ্ণ
 
 
 

শীর্ষ খবর ডটকম

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

মাদ্রাসা শিক্ষাকে ‘বিষবৃক্ষ’ এবং ইসলামি শাসনব্যবস্থাকে ‘মোল্লাতন্ত্রের’ সঙ্গে তুলনা করে জাতীয় সংসদে সাবেক মন্ত্রী ও বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টির সভাপতি রাশেদ খান মেনন যে বক্তব্য দিয়েছেন এর তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছের চরমোনাই পীর মুফতী সৈয়দ মুহাম্মদ রেজাউল করীম। এই বক্তব্যের মাধ্যমে মেনন জাতীয় সংসদকে কলঙ্কিত করেছেন বলেও মন্তব্য করেন ইসলামী আন্দোলনের আমির।

শুক্রবার সকালে সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে ইসলামী শ্রমিক আন্দোলনের জাতীয় শ্রমিক কনভেনশনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

সরকারের সমালোচনা করে চরমোনাই পীর বলেন, ‘ডাকসু নির্বাচনকে বিতর্কিত করার মাধ্যমে সরকার শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানকে বিতর্কিত করেছে।’

‘ইভিএম চালু হলে রাতে ভোট হবে না’ সিইসির এমন বক্তব্যের সমালোচনা করে তিনি বলেন, ‘সিইসির বক্তব্যের মাধ্যমে থলের বিড়াল বের হয়ে এসেছে। সত্য বেশিদিন চাপা দিয়ে রাখা যায় না।’

ইসলামি আন্দোলনের আমির বলেন, ‘রাষ্ট্রীয় এবং দলীয় লুটপাট, দুর্নীতি ও কায়েমী স্বার্থবাদীদের কারণে শ্রমিকদের ভাগ্যের পরিবর্তন হচ্ছে না। দুর্নীতি বন্ধ না করে গ্যাস-বিদ্যুতের মূল্যবৃদ্ধির চেষ্টা দেশের সাধারণ মানুষকে শোষণের নামান্তর।’

‘গ্যাসের মূল্য এক টাকাও বাড়ালে জনগণ মেনে নেবে না। স্বাধীনতার ৪৮ বছর অতিক্রান্ত হলেও শ্রমিকদের সমস্যার শেষ নেই। গার্মেন্ট, কৃষি থেকে শুরু করে সর্বস্তরের শ্রমিকরা এখনো ঝুঁকিপূর্ণ পরিবেশ ও ন্যায্য মজুরির বঞ্চনা নিয়েই কাজ করছেন। সরকারগুলো শ্রমিকের সংকটের বাস্তবমুখি সমাধান করছে না। যে কারণে কর্মক্ষেত্রে দুর্ঘটনা, শিল্পবিরোধ, স্বাস্থ্য সমস্যা, বকেয়া মজুরি, বিনা নোটিসে ছাঁটাই, নারী শ্রমিকদের যৌন হয়রানিসহ সর্বত্র সমস্যা থেকেই যাচ্ছে। এসবের অন্যতম কারণ মালিক-শ্রমিক সুসম্পর্কের অনুপস্থিতি।’

‘ইসলামী শ্রমনীতির অনুপস্থিতিতে শ্রমিকরা সুযোগ-সুবিধা ও ন্যায্য অধিকার থেকে বঞ্চিত। দেশের শ্রমিকরা অসহায় জীবন যাপন করছে। শ্রমিকদের চাকরির নিশ্চয়তা দিতে হবে। শ্রমিকদের আস্থায় নিয়ে সুস্থ পরিবেশ নিশ্চিত করতে পারলে বাংলাদেশে শিল্পায়ন সম্ভব। কায়েমী স্বার্থবাদীদের কারণে দেশের শ্রমিকরা এখনো দারিদ্র্যসীমার নিচে বসবাস করছেন।’

ইসলামী শ্রমিক আন্দোলনের কেন্দ্রীয় সভাপতি অধ্যাপক মোহাম্মদ আশরাফ আলী আকনের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক মুহাম্মদ খলিলুর রহমানের পরিচালনায় অনুষ্ঠিত শ্রমিক কনভেনশনে বিশেষ অতিথির বক্তব্য দেন ইসলামী আন্দোলনের প্রেসিডিয়াম সদস্য অধ্যক্ষ সৈয়দ মোসাদ্দেক বিল্লাহ আল মাদানী, নায়েবে আমির মুফতি সৈয়দ মোহাম্মদ ফয়জুল করীম শায়েখে চরমোনাই, মহাসচিব অধ্যক্ষ হাফেজ মাওলানা ইউনুছ আহমাদ ও যুগ্ম মহাসচিব অধ্যাপক হাফেজ মাওলানা এটিএম হেমায়েত উদ্দীন, মাওলানা গাজী আতাউর রহমান।

বক্তব্য দেন আব্দুর রহমান, জান্নাতুল ইসলাম, মুহাম্মদ হারুনুর রশিদ, ক্যাপ্টেন অব. ইব্রাহিম, হাফেজ মাওলানা ছিদ্দিকুর রহমান, মাওলানা মামুনুর রশীদ, ডা. আল আমীন এহসান, অধ্যাপক আব্দুল করীম প্রমূখ।


  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Print

শীর্ষ খবর/আ আ

সংবাদটি পড়া হয়েছে 1026 বার